Madhyamik Geography

পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Prithibir Mukho Jolobayu Anchal – Madhyamik Geography Suggestion PDF

Share

পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন

Prithibir Mukho Jolobayu Anchal – Madhyamik Geography Suggestion PDF

মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) সাজেশন – Prithibir Mukho Jolobayu Anchal – Madhyamik Geography Suggestion PDF : পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন ও অধ্যায় ভিত্তিতে প্রশ্নোত্তর নিচে দেওয়া হল।  এবার পশ্চিমবঙ্গ মাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষায় বা মাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষায় ( WB Madhyamik Geography Suggestion PDF  | Prithibir Mukho Jolobayu Anchal – West Bengal Madhyamik Geography Suggestion PDF  | WBBSE Board Class 10th Geography Question and Answer with PDF file Download) এই প্রশ্নউত্তর ও সাজেশন খুব ইম্পর্টেন্ট । আপনারা যারা আগামী মাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষার জন্য বা মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) | Madhyamik Geography Suggestion PDF  | WBBSE Board Madhyamik Class 10th (X) Geography Suggestion  Question and Answer খুঁজে চলেছেন, তারা নিচে দেওয়া প্রশ্ন ও উত্তর ভালো করে পড়তে পারেন। 

মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | পশ্চিমবঙ্গ দশম শ্রেণীর ভূগোল সাজেশন/নোট (West Bengal Class 10th Suggestion PDF / Madhyamik Geography Suggestion) | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – MCQ, SAQ, Short, Descriptive Question and Answer

পশ্চিমবঙ্গ মাধ্যমিক দশম শ্রেণীর ভূগোল সাজেশন (West Bengal Madhyamik Geography Suggestion PDF / Notes) পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর – MCQ প্রশ্নোত্তর, অতি সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন উত্তর (SAQ), সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন উত্তর (Short Question and Answer), ব্যাখ্যাধর্মী বা রচনাধর্মী প্রশ্নোত্তর (descriptive question and answer) এবং PDF ফাইল ডাউনলোড লিঙ্ক নিচে দেওয়া রয়েছে

পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়)

অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion :

  1. উষ্ণতা বৃষ্টিপাত লেখচিত্রে বৃষ্টিপাতকে কোন্ মানচিত্রে দেখানো হয় ?

Answer : জলবায়ু উত্তর স্তম্ভের আকারে ।

  1. লেখচিত্রে রেখার আকারে কোন্ জলবায়ুর উপাদানকে দেখানো হয় ?

Answer : উষ্ণতা । 

  1. কোন্ জলবায়ুতে গ্রীষ্মকাল শুষ্ক ও শীতকাল আর্দ্র ?

Answer : ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু ।

  1. কোন্ জলবায়ুকে উষ্ণ সমুদ্রস্রোত সর্বাধিক প্রভাবিত করে ?

Answer : পশ্চিম উপকূলীয় সামুদ্রিক জলবায়ু ।

  1. কোন্ জলবায়ুতে উষ্ণ আর্দ্র ঋতু পরিবর্তনহীন পরিলক্ষিত হয় ?

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ু ।

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলের লেখচিত্র থেকে গোলার্ধ নির্ণয় সম্ভব হয় না ?

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ু ।

  1. ‘ 4 O’clock shower region ‘ কোন্ জলবায়ুকে বলা হয় ?

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ু ।

  1. কোন্ জলবায়ুতে দুপুরে উষ্ণতা ৫০ ° C পর্যন্ত ওঠে ।

Answer : ক্রান্তীয় মরু জলবায়ু ।

MCQ | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion :

  1. কোন্‌টি ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য -(A) সারাবছর বৃষ্টি(B) চরম জলবায়ু(C) শুষ্ক গ্রীষ্মকাল ও আর্দ্র শীতকাল(D) প্রবল তুষারপাত

Answer : (C) শুষ্ক গ্রীষ্মকাল ও আর্দ্র শীতকাল

  1. দক্ষিণ গোলার্ধের যে – কোনো স্থানের উষ্ণতা রেখাচিত্রটি কেমন হয় -(A) মধ্যভাগ অবতল(B) মধ্যভাগ উত্তল(C) সরল(D) কোনোটিই নয়

Answer : (A) মধ্যভাগ অবতল

  1. কোন্ বায়ুর প্রভাবে ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চলে শীতকালে বৃষ্টি হয়— (A) আয়ন বায়ু(B) মেরু বায়ু(C) পশ্চিমা বায়ু(D) মৌসুমি বায়ু

Answer : (C) পশ্চিমা বায়ু

  1. সাইবেরিয়া কোন্ জলবায়ুর অন্তর্গত -(A) ক্রান্তীয় মৌসুমি(B) নিরক্ষীয়(C) ভূমধ্যসাগরীয়(D) তুন্দ্রা

Answer : (B) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলের বৃষ্টিপাত লেখচিত্রে দুটি সুস্পষ্ট শীর্ষবিন্দু দেখা যায়—(A) মৌসুমি (B) ভূমধ্যসাগরীয়(C) তুন্দ্রা(D) নিরক্ষীয়

Answer : (D) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ জলবায়ুর বৃষ্টিপাত লেখচিত্রে বেশ কয়েকটি মাসে স্তম্ভ থাকে না -(A) উষ্ণ মরু (B) ভূমধ্যসাগরীয়(C) মৌসুমি(D) নিরক্ষীয়

Answer : (A) উষ্ণ মরু 

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে বার্ষিক উষ্ণতার গড় সারাবছরে প্রায় একই থাকে -(A) নিরক্ষীয়(B) মৌসুমি(C) মরু(D) তুন্দ্রা

Answer : (A) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে কালবৈশাখী দেখা যায়—(A) ক্রান্তীয় মরু(B) মৌসুমি(C) ভূমধ্যসাগরীয়(D) তুন্দ্রা

Answer : (B) মৌসুমি

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে উষ্ণতা রেখাটি প্রায় সরল হয়— (A) তুন্দ্রা (B) ভূমধ্যসাগরীয়(C) পশ্চিম ইউরোপীয়(D) নিরক্ষীয়

Answer : (D) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ আবহবিজ্ঞানী পৃথিবীর জলবায়ুর শ্রেণিবিভাগ করেন— (A) ডেভিস(B) গিলবার্ট(C) কোপেন(D) পাওয়েল

Answer : (C) কোপেন

  1. কোন জলবায়ু অঞ্চলে ঋতুপরিবর্তন লক্ষ করা যায় না -(A) নিরক্ষীয় (B) ক্রান্তীয় মৌসুমি(C) ভূমধ্যসাগরীয়(D) চিনদেশীয়

Answer : (A) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে শীতকাল বর্ষাকাল—(A) ক্রান্তীয় মৌসুমি(B) উষ্ণ মরু(C) ভূমধ্যসাগরীয়(D) নিরক্ষীয়

Answer : (C) ভূমধ্যসাগরীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে বার্ষিক উষ্ণতার প্রসার সবচেয়ে কম – (A) তুন্দ্রা(B) ক্রান্তীয় মরু(C) স্টেপ(D) নিরক্ষীয়

Answer : (D) নিরক্ষীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে বার্ষিক বৃষ্টি খুব কম – (A) নিরক্ষীয়(B) ক্রান্তীয় মৌসুমি(C) উষ্ণ মরু(D) ভূমধ্যসাগরীয়

Answer : (C) উষ্ণ মরু

  1. কোন জলবায়ু অঞ্চলে দুপুরে সর্বোচ্চ উষ্ণতা ৫০ ° C পর্যন্ত হয়— (A) নিরক্ষীয়(B) তুন্দ্রা (C) পশ্চিম ইউরোপীয়(D) উষ্ণ মরু

Answer : (D) উষ্ণ মরু

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে বছরের অর্ধেকের বেশি সময় বরফ । ঢাকা থাকে—(A) ক্রান্তীয় মরু(B) তুন্দ্রা(C) নিরক্ষীয়(D) ভূমধ্যসাগরীয়

Answer : (B) তুন্দ্রা

  1. কোন্ দেশটির জলবায়ু নিরক্ষীয় জলবায়ু প্রকৃতির— (A) মালয়েশিয়া(B) রাশিয়া(C) চিন(D) ভারত

Answer : (A) মালয়েশিয়া

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলটি সমুদ্র উপকূলে অবস্থিত -(A) স্টেপ জলবায়ু(B) ক্রান্তীয় মরু(C) ভূমধ্যসাগরীয়(D) মহাদেশীয়

Answer : (B) ক্রান্তীয় মরু

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলে সারাবছর বৃষ্টি হয় – (A) নিরক্ষীয়(B) তুন্দ্রা(C) ক্রান্তীয় মরু(D) মহাদেশীয়

Answer : (D) মহাদেশীয়

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলের জলবায়ু চরম প্রকৃতির— (A) নিরক্ষীয়(B) পশ্চিম ইউরোপীয়(C) মহাদেশীয়(D) ভূমধ্যসাগরীয়

Answer : (C) মহাদেশীয়

সংক্ষিপ্ত উত্তরভিত্তিক প্রশ্নোত্তর | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion :

  1. এশিয়ার মধ্যপ্রাচ্যের দুটি দেশের নাম লেখো যেখানে ডয় মরু জলবায়ু দেখা যায় ।

Answer : ( ১ ) সৌদি আরব , ( ২ ) ওমান ।

  1. উষ্ণ মরু জলবায়ুর দুটি বৈশিষ্ট্য লেখো ।

Answer : ( ১ ) জলবায়ু উষ্ণ – শুষ্ক প্রকৃতির । ( ২ ) বৃষ্টিপাতের পরিমাণ খুবই কম , < ২৫ সেমি ।

  1. ভূমধ্যসাগরের বাইরে দুটি ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চলের নাম লেখো ।

Answer : ( 1 ) উত্তর আমেরিকা মহাদেশের ক্যালিফোর্নিয়া অঞ্চল , ( ২ ) অস্ট্রেলিয়ার পার্থ ও অ্যাডিলেড অঞ্চল ।

  1. ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ুকে কেন ‘ বিনোদনের জলবায়ু বলা হয় ।

Answer : ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চল সমুদ্র উপকূলে অবস্থিত । সমুদ্রবায়ু ও স্থলবায়ুর প্রভাবে জলবায়ু থাকে সারাবছর নাতিশীতোয় ও মনোরম । তাই এটি ‘ মনোরমের জলবায়ু ’ বা ‘ Resort climate of the world ‘

  1. উত্তর গোলার্ধের দুটি স্টেপ জলবায়ুর নাম লেখো ।

Answer : ( ১ ) ইউরেশিয়ার স্টেপ অঞ্চল , ( ২ ) উ : আমেরিকার পম্পাস অঞ্চল ।

  1. দক্ষিণ গোলার্ধের দুটি স্টেপ জলবায়ুর নাম লেখো ।

Answer : ( ১ ) দক্ষিণ আমেরিকার পম্পাস , ( ২ ) অস্ট্রেলিয়ার ডাউপ্স্ ।

  1. ইউরোপের উত্তর – পশ্চিম অঞ্চলের জলবায়ু নাতিশীতোয় কেন ?

Answer : উষু উপসাগরীয় সমুদ্রস্রোতের কারণে ইউরোপের উত্তর – পশ্চিমের ব্রিটিশ দ্বীপপুঞ্জের উভয় পাশের জলবায়ু হয়েছে নাতিশীতোয় প্রকৃতির ।

  1. চরমভাবাপন্ন জলবায়ু কাকে বলে ?

Answer : যেখানে শীতকালে উষ্ণতা খুব কম এবং গ্রীষ্মকালে খুব বেশি অর্থাৎ বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর খুব বেশি তাকে চরমভাবাপন্ন জলবায়ু বলে । মহাদেশীয় জলবায়ু চরমভাবাপন্ন প্রকৃতির ।

  1. মহাদেশীয় জলবায়ু চরমভাবাপন্ন কেন ?

Answer : সমুদ্র থেকে দূরে মহাদেশের অভ্যন্তরে সমুদ্রবায়ু ও স্থলবায়ুর প্রভাব থাকে না বলেই মহাদেশীয় জলবায়ু হয়েছে চরমভাবাপন্ন প্রকৃতির ।

  1. তুন্দ্রা জলবায়ুর দুটি বৈশিষ্ট্য লেখো ।

Answer : ( ১ ) তুন্দ্রা জলবায়ুতে শীতকাল দীর্ঘ এবং শীতের তীব্রতা খুব বেশি । ( ২ ) এখানে প্রবল তুষারপাত হয় ।

  1. দুটি তুদ্রা জলবায়ু অঞ্চলের নাম লেখো ।

Answer : ( ১ ) সাইবেরিয়ার উত্তর অংশ , ( ২ ) কানাডার উত্তর অংশ এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আলাস্কা ।

  1. বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র কাকে বলে ?

Answer : যে লেখচিত্রে বৃষ্টিপাত স্তম্ভাকারে এবং উষ্ণতা রেখাচিত্রের মাধ্যমে উপস্থাপন করা হয় তা হল বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র ।

  1. বৃষ্টিপাত উষ্ণতা লেখচিত্রে উষ্ণতা রেখাটির মধ্যাংশ উ : গোলার্ধে উত্তল এবং দক্ষিণ গোলার্ধে অবতল হয় কেন ?

Answer : এই লেখচিত্রে জানুয়ারি থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত প্রতি মাসের গড় উষ্ণতা ধরে অঙ্কন করা হয় । উত্তর গোলার্ধে এপ্রিল থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত উষ্ণতা বেশি ( গ্রীষ্মকাল ) থাকে বলে রেখাটির মধ্যাংশ হয় উত্তল এবং দক্ষিণ গোলার্ধে এপ্রিল থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত উষ্ণতা কম ( শীতকাল ) থাকে বলে রেখাটির মধ্যাংশ হয় অবতল ।

  1. কোন্ জলবায়ু অঞ্চলের উষ্ণতা রেখাচিত্র থেকে গোলার্ধ নির্ণয় সম্ভব হয় না ও কেন ?

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ুর উষ্ণতা রেখাচিত্র থেকে গোলার্ধ নির্ণয় সম্ভব নয় । এই জলবায়ু অঞ্চল পৃথিবীর মাঝবরাবর বিস্তৃত হওয়ায় | সারাবছর গড় উষ্ণতা সমান । কোনো ঋতু পরিবর্তন এখানে ঘটে না । প্রতিমাসে গড় উষ্ণতা সমান বলেই গোলার্ধ নির্ণয় সম্ভব নয় ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ুর বৃষ্টিপাত স্তম্ভচিত্রে দুটি শীর্ষবিন্দু তৈরি হয় কেন ?

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ুতে প্রতিমাসে বৃষ্টি ঘটলেও সারাবছর মার্চ ও সেপ্টেম্বরে বৃষ্টির পরিমাণ বাকি মাসগুলির তুলনায় বেশি বলেই সারাবছরের স্তম্ভচিত্রে মার্চ ও সেপ্টেম্বরে দুটি শীর্ষবিন্দু তৈরি হয় ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ু অঞ্চলকে ‘ 4 O’clock shower region ‘ বলা হয় কেন ?

Answer : নিরক্ষীয় অঞ্চলে প্রবল উষ্ণতায় জল বাষ্পীভূত হয়ে অপরাহ্নে কিউমুলোনিম্বাস মেঘ সৃষ্টির মাধ্যমে পরিচলন পদ্ধতিতে বৃষ্টি হয় । প্রায় প্রতিদিন অপরাহ্নে এখানে বৃষ্টি হয় বলেই এই অঞ্চল ‘ 4 O’clock shower region ‘ নামে পরিচিত ।

  1. জলবায়ু অঞ্চল কাকে বলে ?

Answer : নির্দিষ্ট অঞ্চল যেখানে জলবায়ুর উপাদানগুলির কার্যকারিতা প্রায় এক এবং অঞ্চলটিতে একই ধরনের জলবায়ু বিরাজ করে তা হল জলবায়ু অঞ্চল ।

  1. কোন্ কোন্ আবহবিজ্ঞানী জলবায়ুর শ্রেণিবিভাগ করেন ?

Answer : কোপেন , থর্নওয়েট , ট্রেওয়ার্থা প্রভৃতি । কোন্ কোন্ বিষয়ের ওপর ভিত্তি করে জলবায়ুর শ্রেণিবিভাগ করা হয় ? | উত্তর ( ১ ) মোট বিকিরণ , ( ২ ) উষ্ণতা , ( ৩ ) বৃষ্টিপাত , ( ৪ ) স্বাভাবিক উদ্ভিদ , ( ৫ ) মৃত্তিকা — এই পাঁচটি বিষয়ের ওপর ভিত্তি করে জলবায়ুর শ্রেণিবিভাগ করা হয় ।

  1. আমেরিকার দুটি দেশের নাম লেখো যেখানে নিরক্ষীয় জলবায়ু পরিলক্ষিত হয় ?

Answer : ( ১ ) ব্রাজিলের মধ্যভাগের সেলভা অরণ্য , ( ২ ) ইকুয়েডর । প্রশ্ন এশিয়া মহাদেশের কোন কোন দেশে নিরক্ষীয় জলবায়ু দেখা যায় ? উত্তর ( ১ ) মালয়েশিয়া , ( ২ ) ইন্দোনেশিয়া , ( ৩ ) সিঙ্গাপুর । নিরক্ষীয় জলবায়ুতে গড় উষ্ণতা সারাবছর বেশি C | উত্তর ( ১ ) সারাবছর নিরক্ষীয় অঞ্চলে সূর্যকিরণ লম্বভাবে পড়ে এবং ( ২ ) দিন ও রাতের দৈর্ঘ্য সারাবছর সমান । এই দুটি কারণে গড় উষ্ণতা এখানে সারাবছর বেশি ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ু অঞ্চলে প্রবল বৃষ্টি হয় কেন ?

Answer : ( ১ ) নিরক্ষীয় অঞ্চলে প্রায় সারাবছর সূর্যরশ্মি লম্বভাবে পড়ে এবং ( ২ ) সমুদ্রের বিস্তার খুব বেশি । এই দুটি কারণে প্রায় প্রতিদিন প্রবল উষ্ণতায় জল বাষ্পীভূত হয়ে অপরাহ্নে বৃষ্টি ঘটায় ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ুর দুটি বৈশিষ্ট্য লেখো ।

Answer : ( ১ ) সারাবছর উষ্ণ – আর্দ্র জলবায়ু , ( ২ ) জলবায়ুতে ঋতু পরিবর্তন ঘটে না । নিরক্ষীয় অঞ্চলে কোন্ দুটি মাসে বৃষ্টি বেশি ? উত্তর ( ১ ) মার্চ ও ( ২ ) সেপ্টেম্বরে — এই দুটি মাসে বৃষ্টির পরিমাণ বাকি মাসের তুলনায় বেশি ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ুর উষ্ণতার দুটি বৈশিষ্ট্য লেখো ।

Answer : ( ১ ) সারাবছর গড় উষ্ণতা বেশি ( ২৭ ° C ) এবং প্রতি মাসেই উষ্ণতা একইপ্রকার । ( ২ ) বার্ষিক গড় উষ্ণতার প্রসর খুব কম এবং বার্ষিক উষ্ণতার প্রসরের থেকে দৈনিক উষ্ণতার প্রসর বেশি ।

  1. মৌসুমি জলবায়ুর প্রধান বিচরণক্ষেত্র কাকে বলা হয় ?

Answer : ভারত উপমহাদেশের ভারত সমেত বাংলাদেশ , মায়ানমার প্রভৃতি হল মৌসুমি বায়ুর প্রধান বিচরণক্ষেত্র ।

  1. মৌসুমি জলবায়ু খামখেয়ালি প্রকৃতির কেন ?

Answer : মৌসুমি জলবায়ু অঞ্চলের প্রধান নিয়ন্ত্রক হল মৌসুমি বায়ু । এই বায়ুর চরিত্র অত্যন্ত খামখেয়ালি প্রকৃতির হওয়ায় জলবায়ু হয়েছে খামখেয়ালি প্রকৃতির ।

  1. আফ্রিকার দুটি উষ্ণ – মরু জলবায়ু অঞ্চলের নাম লেখো ।

Answer :: আফ্রিকার উত্তরে ( ১ ) সাহারা মরুভূমি এবং দক্ষিণে ( ২ ) কালাহরি মরুভূমি উষ্ণ মরু জলবায়ু অঞ্চলের অন্তর্গত ।

সংক্ষিপ্ত ব্যাখাধর্মী প্রশ্নোত্তর | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion :

  1. উষ্ণ মরু জলবায়ুতে বৃষ্টি কম হয় কেন ?

Answer : ( i ) উষ্ণ মরু জলবায়ু উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ শাস্তবলয়ের অন্তর্গত । ( ii ) এখানে শুষ্ক বায়ু উপর থেকে নীচে ( বায়ুস্রোত ) নেমে আসে । ( iii ) ফলে আকাশে মেঘের সঞ্চার হয় না এবং বৃষ্টিও হয় না । এখানে বাৎসরিক গড় বৃষ্টি ২৫ সেমিরও কম । 

  1. ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু কোথায় কোথ পরিলক্ষিত হয় ?

Answer : উভয় গোলার্ধের ৩০ ° -৪০ ° অক্ষরেখার মধ্যে নাতিশীতোয় মণ্ডলে ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু দেখা যায় । প্রধান অঞ্চলগুলি হল— ( i ) ভূমধ্যসাগরের তীরবর্তী ইউরোপ , আফ্রিকা ও এশিয়ার দেশসমূহ ; ( ii ) উত্তর আমেরিকার লস এঞ্জেলস ; ( iii ) দক্ষিণ আমেরিকার চিলির মধ্যভাগ ; ( iv ) দক্ষিণ আফ্রিকার কেপটাউন ; ( v ) অস্ট্রেলিয়ার পার্থ ও অ্যাডিলেড । 

  1. ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চলে গ্রীষ্মকাল শুষ্ক এবং শীতকাল আৰ্দ্ৰ কেন ?

 অথবা , ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চলে শীতকালে বৃষ্টি হয় কেন ?

Answer : ( i ) গ্রীষ্মকালে ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চলে উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ শান্ত বলয় অবস্থান করে বলে বায়ু উপর থেকে নীচে নেমে আসে । ফলে আকাশে মেঘের সঞ্চার হয় না । এবং বৃষ্টিপাত ঘটে না । ( ii ) পক্ষান্তরে শীতকালে এই অঞ্চল থেকে উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ বলয় সরে যায় । অর্থাৎ অঞ্চলটি চাপ বলয় মুক্ত হয় বলে পশ্চিমা বায়ু প্রবাহিত হতে পারে । পশ্চিমা বায়ু সমুদ্র থেকে জলীয় বাষ্প সংগ্রহ করে এই অঞ্চলে প্রবেশ করে বৃষ্টিপাত ঘটায় । তাই শীতকালে এখানে বৃষ্টিপাত হয় এবং গ্রীষ্মকাল শুষ্ক থাকে ।

  1. স্টেপ জলবায়ু কোথায় কোথায় দেখা যায় ?

Answer : পৃথিবীর নাতিশীতোয় তৃণভূমি অঞ্চলগুলি স্টেপ জলবায়ুর অন্তর্গত । অঞ্চলগুলি হল – ( i ) ইউরেশিয়ার স্টেপ অঞ্চল , ( ii ) উত্তর আমেরিকার প্রেইরী অঞ্চল , ( iii ) দক্ষিণ আমেরিকার পম্পাস অঞ্চল , ( iv ) দক্ষিণ আফ্রিকার ভেল্ড এবং ( v ) অস্ট্রেলিয়ার ডাউনস্ অঞ্চল ।

  1. স্টেপ জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি লেখো ।

Answer : ( i ) মহাদেশের অভ্যন্তরে অবস্থানের কারণে জলবায়ু চরম প্রকৃতির । ( ii ) শীতকালে উষ্ণতা খুব কম হয় । কখনো – কখনো হিমাঙ্কের অনেকটা নীচে নামে । ( iii ) গ্রীষ্মকালে গড় উষ্ণতা থাকে ২০০-২৫ ° C এবং বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর ২৫ ° -৩০ ° C । ( iv ) গড় বৃষ্টি ২৫-৫০ সেমি এবং শীতকালে বরফ পড়ে ।

  1. তুন্দ্রা জলবায়ুর অবস্থান উল্লেখ করো ।

Answer : উত্তর গোলার্ধের ৭০ ° -৮০ ° অক্ষরেখার মধ্যে তুন্দ্রা জলবায়ু পরিলক্ষিত হয় । প্রধান অঞ্চলগুলি হল – ( i ) এশিয়ার সাইবেরিয়ার উত্তর অংশ ; ( ii ) ইউরোপের নরওয়ে , সুইডেন ও অংশ ; ( iii ) উত্তর আমেরিকার কানাডার উত্তর ফিনল্যান্ডের অংশ , গ্রিনল্যান্ডের দক্ষিণ উপকূল এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আলাস্কা ।

  1. তুন্দ্রা জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি লেখো ।

Answer : তুন্দ্রা জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : ( ১ ) মেরুপ্রায় অঞ্চলে অবস্থানের কারণে শীতকাল দীর্ঘস্থায়ী ( ৭–৮ মাস ) এবং গ্রীষ্মকাল স্বল্পস্থায়ী ( ৪-৫ মাস ) । ( ২ ) শীতকালের গড় উষ্ণতা হয় – ২০ ° সেলসিয়াস এবং গ্রীষ্মকালে ০ ° থেকে ১০ ° C । বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর খুব বেশি , প্রায় ৩০ ° -80 ° C । ( ৪ ) শীতকালে প্রবল তুষারপাত হয় এবং তুষারঝড় ( ব্লিজার্ড ) ঘটে ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ুর অবস্থান উল্লেখ করো ।

Answer : নিরক্ষরেখার উভয় পাশে গড়ে ৫ ° -১০ ° অক্ষরেখার মধ্যে নিরক্ষীয় জলবায়ু বিস্তৃত । প্রধান অঞ্চলগুলি হল— ( ক ) দক্ষিণ C আমেরিকায় ব্রাজিলের মধ্যভাগ , পেরু , কলম্বিয়া , ইকুয়েডর , বলিভিয়া , ( খ ) আফ্রিকার কঙ্গো , গ্যাবন , ক্যামেরুন , অ্যাঙ্গোলা , ( গ ) এশিয়ার মালয়েশিয়া , ইন্দোনেশিয়া , সিঙ্গাপুর ইত্যাদি । 

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ুর প্রধান বৈশিষ্ট্যগুলি উল্লেখ করো ।

Answer : ( i ) নিরক্ষীয় জলবায়ু অঞ্চলে গড় উষ্ণতা সারাবছর খুব বেশি গড়ে ২৭ ° C ( ii ) বার্ষিক গড় উষ্ণতার প্রসর খুব কম ( ২ ° -৩ ° C ) । বার্ষিক গড় উষ্ণতার পার্থক্যের থেকে দৈনিক উষ্ণতার পার্থক্য ( ৪ ° -১০ ° C ) বেশি । ( iii ) সারাবছর ধরেই বৃষ্টি হয় । বার্ষিক গড় বৃষ্টি ২০০-২৫০ সেমি । বৃষ্টির অধিকাংশই ঘটে অপরাহ্ণে । ( iv ) জলবায়ু ঋতু পরিবর্তনহীন । সারাবছর একটি ঋতু বিরাজ করে ।

  1. নিরক্ষীয় জলবায়ু অঞ্চলের জলবায়ু উদ্বু – আর্দ্র ও প্রকৃতির কেন ?

Answer : ( i ) নিরক্ষীয় অঞ্চলে সারাবছর সূর্যকিরণ লম্বভাবে পড়ে এবং দিন ও রাত্রির দৈর্ঘ্য সমান বলে গড় উষ্ণতা বেশি । ( ii ) নিরক্ষীয় অঞ্চল বরাবর সমুদ্রের বিস্তার বেশি বলে অধিক ত উষ্ণতায় জল বাষ্পীভূত হয় । ফলে বাতাসে আর্দ্রতা খুব বেশি । তাই সারাবছর ধরেই এখানে জলবায়ু উষ্ণ – আর্দ্র প্রকৃতির ।

  1. পৃথিবীর কোথায় কোথায় মৌসুমি জলবায়ু পরিলক্ষিত হয় ?

Answer : উভয় গোলার্ধের ১০ ° -২৫ ° অক্ষরেখার মধ্যে ক্রান্তীয় মৌসুমি জলবায়ু পরিলক্ষিত হয় । অঞ্চলগুলি হল – ( i ) এশিয়ার ভারতীয় উপমহাদেশের ভারত , বাংলাদেশ , মায়ানমার , ভিয়েতনাম , চিনের দক্ষিণ অংশ ; ( ii ) আফ্রিকার পূর্বে মোজাম্বিক , কেনিয়া , সোমালি এবং পশ্চিমে গিনি , সিয়েরালিওন আভরি কোর্স্ট ; ( iii ) দক্ষিণ আমেরিকার ভেনেজুয়েলা , গায়ানা , সুরিনাম ; ( iv ) অস্ট্রেলিয়ার কার্পেন্টারিয়া উপসাগর অঞ্চল ।

  1. পৃথিবীর উষ্ণ মরু জলবায়ু কোথায় কোথায় দেখা যায় ?

Answer : ক্রান্তীয় মরুভূমি হল উষ্ণ মরু জলবায়ু অঞ্চল । ( i ) আফ্রিকার উত্তরে সাহারা ও দক্ষিণে কালাহারি মরুভূমি ; ( ii ) উত্তর আমেরিকার সোনেরান ; ( iii ) দক্ষিণ আমেরিকার আটাকামা ; ( iv ) অস্ট্রেলিয়ার অস্ট্রেলিয়া মরুভূমি এবং ( v ) মধ্যপ্রাচ্যের সৌদি আরব , ইয়ামেন , ওমান , কাতার ইত্যাদি । 

  1. উষ্ণ মরু জলবায়ুর প্রধান বৈশিষ্ট্যগুলি লেখো ।

Answer : ( i ) জলবায়ু উষ্ণ ও শুষ্ক এবং চরমভাবাপন্ন প্রকৃতির । ( ii ) গ্রীষ্মকালের গড় উষ্ণতা ৩০ ° -৩৫ ° C এবং শীতকালে ২০ ° C । বার্ষিক উষ্ণতার প্রসার বেশ বেশি , প্রায় ১৫ ° C । উষ্ণতায় চরমতা খুব বেশি । ( iii ) বার্ষিক গড় বৃষ্টি কম , Z২৫ সেমি । অধিকাংশ মাস বৃষ্টিহীন । 

রচনাধর্মী প্রশ্নোত্তর | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion :

1. পৃথিবীর উষ্ণ মরু জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি উল্লেখ করো ।

Answer : উষু মরু জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : 

( ১ ) চরমভাবাপন্ন জলবায়ু মরুভূমির জলবায়ু চরমভাবাপন্ন প্রকৃতির । বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর এখানে খুব বেশি । দিনে যেমন উষ্ণতা বেশ বাড়ে তেমনি রাত্রেও উষ্ণতা কমে । 

( ২ ) উগ্ন ও শুষ্ক জলবায়ু : সারাবছর আদ্রহীন উষ্ণ শুষ্ক জলবায়ু বিরাজ করে । 

( ৩ ) শান্তবলয়ের অবস্থান । এই অঞ্চল উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ শান্তবলয়ের অন্তর্গত । বায়ু এখানে ঊর্ধ্বস্থান থেকে নীচের দিকে । ধীরে ধীরে ( বায়ুস্রোত ) নেমে আসে । 

( ৪ ) উষ্ণতা : গ্রীষ্মকালে গড় উষ্ণতা ৩০০-৩৫ ° C এবং শীতকালে ২০০-২৫ ° C । গ্রীষ্মের দুপুরে উষ্ণতা ৫০ ° C পর্যন্ত ওঠে । বার্ষিক গড় উষ্ণতার প্রসর ১৫ ° -২০ ° C এবং দৈনিক উষ্ণতার প্রসর ২০ ° সেলসিয়াস । 

( ৫ ) বৃষ্টিপাত : উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ বলয়ে অবস্থান করায় বায়ু সর্বদা নিম্নমুখী বলে আকাশে মেঘের সঞ্চার হয় না । তাই বৃষ্টিও খুব কম । বার্ষিক গড় বৃষ্টি ২৫ সেমির কম । 

2. তুন্দ্রা জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি লেখো ।

Answer : তুন্দ্রা জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : 

( ১ ) দীর্ঘস্থায়ী শীতকাল ; উপমেরু অঞ্চল বরাবর এই জলবায়ু অঞ্চল অবস্থানের কারণে এখানে প্রায় ৯ মাস শীতকাল বিরাজ করে , যখন উষ্ণতা হিমাঙ্কের অনেকটা নীচে থাকে । 

( ২ ) স্বল্পস্থায়ী গ্রীষ্মকাল এখানে গ্রীষ্মকাল মাত্র ৩ মাস । এই সময় উষ্ণতা হিমাঙ্কের কিছুটা ওপরে থাকে । 

( ৩ ) উষ্ণতা : সারাবছর এখানে উষ্ণতা কম । শীতকালে গড় উষ্ণতা থাকে – ২০ ° C এবং গ্রীষ্মকালে ০ ° থেকে ১০ ° C । শীতকালে কখনো কখনো উষ্ণতা হিমাঙ্কের নীচে ৫০ ° C পর্যন্ত নামে । 

( ৪ ) বৃষ্টিপাত : গ্রীষ্মকালে ঘূর্ণবাতের প্রভাবে ২৫-৫০ সেমি বৃষ্টি হয় । 

( ৫ ) তুষারপাত ও তুষারঝড় : শীতকালে উত্তর দিক থেকে কনকনে ঠান্ডা ঝোড়ো বাতাস বয় । প্রায়শই এখানে শীতকালে বরফ পড়ে এবং প্রবল তুষারঝড় ( ব্লিজার্ড ) দেখা দেয় ।

3. নিরক্ষীয় জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি লেখো ।

Answer : নিরক্ষীয় জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : 

( ১ ) ঋতু পরিবর্তনহীন জলবায়ু : এই জলবায়ু অঞ্চলে সারাবছর একটি ঋতু ( উষ্ণ – আর্দ্র গ্রীষ্ম ঋতু ) পরিলক্ষিত হয় । ঋতু পরিবর্তন এখানে লক্ষ করা যায় না । 

( ২ ) উষ্ণতা গড় উষ্ণতা এখানে বেশি , গড়ে ২৭ ° C সারাবছর উষ্ণতা প্রায় একই থাকে । বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর খুব কম ( ২ ° -৩ ° C ) এবং বার্ষিক উষ্ণতার প্রসরের থেকে দৈনিক উষ্ণতার প্রসর এখানে বেশি । 

( ৩ ) বৃষ্টি : প্রায় প্রতিদিন অপরাহ্লে এখানে পরিচলন পদ্ধতিতে বৃষ্টি হয় । বার্ষিক গড় বৃষ্টি ২০০-২৫০ সেমি । প্রতি মাসেই এখানে বৃষ্টি হয় । তবে মার্চ ও সেপ্টেম্বরে বৃষ্টির পরিমাণ বেশি । 

( ৪ ) নিরক্ষীয় শান্তবলয় : এই অঞ্চল নিরক্ষীয় শান্তবলয়ের অন্তর্গত । ভূপৃষ্ঠের সমান্তরালে এখানে বায়ুপ্রবাহ ঘটে না । উষ্ণ আর্দ্র বায়ু পরিচলন পদ্ধতিতে ঊর্ধ্বমুখী হয় । 

( ৫ ) ভ্যাপসা গরম ও গুমোট আবহাওয়া : অধিক উষ্ণতা ও বাতাসে অধিক আর্দ্রতার প্রভাবে আবহাওয়া সর্বদা ভ্যাপসা গরম ও গুমোট থাকে । বৃষ্টির পর রাত্রে উষ্ণতা কিছুটা কমে । তাই এখানে রাত্রিকে শীতকাল ’ বলা হয় । 

4. ক্রান্তীয় মৌসুমি জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি উল্লেখ করো ।

ক্রান্তীয় মৌসুমি জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : 

( ১ ) মৌসুমি বায়ুর অত্যধিক প্রভাব : এই জলবায়ু অঞ্চলের ঋতু পরিবর্তন , বৃষ্টিপাত , উষ্ণতা , আর্দ্রতা , বায়ুপ্রবাহ প্রভৃতি বিষয়গুলি মৌসুমি বায়ু দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয় । 

( ২ ) বিপরীতমুখী বায়ুপ্রবাহ : মৌসুমি বায়ুর আগমনে এখানে বায়ু সমুদ্র থেকে স্থলভাগের দিকে এবং প্রত্যাগমনে স্থলভাগ থেকে সমুদ্রের দিকে বয়ে যায় । ঋতুপরিবর্তনের সঙ্গে সঙ্গে বায়ুপ্রবাহের ১৮০ ° পরিবর্তন ঘটে । 

( ৩ ) বৃষ্টিপাত : মোট বৃষ্টির প্রায় ৯০ ভাগ ঘটে মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে । মৌসুমি বায়ু যেহেতু খামখেয়ালি প্রকৃতির তাই বৃষ্টির বাৎসরিক পরিমাণের তারতম্য ঘটে । বৃষ্টির আঞ্চলিক বণ্টনের তারতম্যও খুব বেশি । এখানে অঞ্চলভিত্তিক গড় বৃষ্টি ৫০-২৫০ সেমি । 

( ৪ ) উষ্ণতা : গ্রীষ্মকালে গড় উষ্ণতা ২৭ ° –৩২ ° সেলসিয়াস এবং শীতকালে ১৫ ° -২০ ° সেলসিয়াস । মৌসুমি বায়ুর আগমনে । বৃষ্টির প্রভাবে উষ্ণতা একলাফে অনেকটা কমে । 

( ৫ ) ঋতু পরিবর্তনহীন মৌসুমি বায়ুর আগমন ও প্রত্যাগমনের ওপর ভিত্তি করে এখানে চারটি সুস্পষ্ট ঋতু ( গ্রীষ্মকাল , বর্ষাকাল । শরৎকাল , শীতকাল ) পরিলক্ষিত হয় । 

5. ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ুর বৈশিষ্ট্যগুলি উল্লেখ করো ।

Answer : ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ুর বৈশিষ্ট্য : 

( ১ ) নাতিশীতোয় ও মনোরম জলবায়ু সমুদ্র উপকূলে অবস্থানের কারণে সমুদ্র বায়ু ও স্থলবায়ুর প্রভাবে জলবায়ু থাকে সারাবছর মনোরম প্রকৃতির । তাই এই জলবায়ুকে বলা হয় । ‘ বিনোদনের জলবায়ু ’ বা ‘ Resort Climate of the World | 

( ২ ) শীতকালে নিম্নচাপ এবং গ্রীষ্মকালে উচ্চচাপ : উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ বলয় গ্রীষ্মকালে এখানে অবস্থান করায় বায়ুচাপ বেশি । আবার শীতকালে উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ বলয় এখান থেকে সরে যায় । বলে বায়ুচাপ কম হয় । 

( ৩ ) শুষ্ক গ্রীষ্মকাল এবং আর্দ্র শীতকাল : উপক্রান্তীয় উচ্চচাপ শান্তবলয় অবস্থান করায় গ্রীষ্মকালে এখানে বৃষ্টি হয় না । শীতকালে এই অঞ্চল থেকে উচ্চচাপ বলয় সরে যাওয়ায় চাপবলয় মুক্ত হয় । বলে পশ্চিমা বায়ু প্রবেশ করে বৃষ্টিপাত ঘটায় । 

( ৪ ) উষ্ণতা : গ্রীষ্মকালে গড় উষ্ণতা ২০ ° -২৫ ° C এবং শীতকালে ৫ ° -১০ ° C । বার্ষিক উষ্ণতার প্রসর ১০ ° -১৫ ° C । ( ৫ ) বৃষ্টিপাত : শীতকালে পশ্চিমা বায়ুর প্রভাবে গড়ে ৫০-৭৫ সেমি বৃষ্টি হয় । ভূমধ্যসাগরীয় জলবায়ু অঞ্চলকে বলা হয় ‘ শীতকালীন বৃষ্টিপাতের দেশ ‘ ।

মাধ্যমিক সাজেশন ২০২৩ – Madhyamik Suggestion 2023

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Bengali Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik English Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Geography Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik History Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Physical Science Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Life Science Suggestion 2023 Click Here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Mathematics Suggestion 2023 Click Here

FILE INFO : Madhyamik Geography Suggestion with PDF Download for FREE | মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন বিনামূল্যে ডাউনলোড করুণ | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর – MCQ প্রশ্নোত্তর, অতি সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন উত্তর, সংক্ষিপ্ত প্রশ্নউত্তর, ব্যাখ্যাধর্মী, প্রশ্নউত্তর

PDF Name : মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF

Price : FREE

Download Link1 : Click Here To Download

Download Link2 : Click Here To Download

পশ্চিমবঙ্গ মাধ্যমিক  ভূগোল পরীক্ষার সম্ভাব্য প্রশ্ন উত্তর ও শেষ মুহূর্তের সাজেশন ডাউনলোড। মাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষার জন্য সমস্ত রকম গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন। West Bengal Madhyamik  Geography Suggestion Download. WBBSE Madhyamik Geography short question suggestion. Madhyamik Geography Suggestion PDF  download. Madhyamik Question Paper  Geography. WB Madhyamik Geography suggestion and important questions. Madhyamik Geography Suggestion PDF.

Get the Madhyamik Geography Suggestion PDF by winexam.in

 West Bengal Madhyamik Geography Suggestion PDF  prepared by expert subject teachers. WB Madhyamik  Geography Suggestion with 100% Common in the Examination.

Class 10th Geography Suggestion

West Bengal Madhyamik  Geography Suggestion Download. WBBSE Madhyamik Geography short question suggestion. Madhyamik Geography Suggestion PDF  download. Madhyamik Question Paper  Geography.

মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর |  WB Madhyamik Geography  Suggestion

মাধ্যমিক ভূগোল (Madhyamik Geography) পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর

মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়)

মাধ্যমিক ভূগোল পশ্চিমবঙ্গ মাধ্যমিক বোর্ডের (WBBSE) সিলেবাস বা পাঠ্যসূচি অনুযায়ী  দশম শ্রেণির ভূগোল বিষয়টির সমস্ত প্রশ্নোত্তর। সামনেই মাধ্যমিক পরীক্ষা, তার আগে winexam.in আপনার সুবিধার্থে নিয়ে এল মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশান – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর । ভূগোলে ভালো রেজাল্ট করতে হলে অবশ্যই পড়ুন । আমাদের মাধ্যমিক ভূগোল

দশম শ্রেণির ভূগোল সাজেশন | পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়)

আমরা WBBSE মাধ্যমিক পরীক্ষার ভূগোল বিষয়ের – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর – সাজেশন নিয়ে পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – প্রশ্ন উত্তর নিয়ে পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়)চনা করেছি। আপনারা যারা এবছর দশম শ্রেণির ভূগোল পরীক্ষা দিচ্ছেন, তাদের জন্য আমরা কিছু প্রশ্ন সাজেশন আকারে দিয়েছি. এই প্রশ্নগুলি পশ্চিমবঙ্গ দশম শ্রেণির ভূগোল পরীক্ষা  তে আসার সম্ভাবনা খুব বেশি. তাই আমরা আশা করছি Madhyamik ভূগোল পরীক্ষার সাজেশন কমন এই প্রশ্ন গুলো সমাধান করলে আপনাদের মার্কস বেশি আসার চান্স থাকবে।

মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF with FREE PDF Download

 মাধ্যমিক ভূগোল, মাধ্যমিক ভূগোল, মাধ্যমিক দশম শ্রেণীর, নবম শ্রেণি ভূগোল, দশম শ্রেণি ভূগোল, নবম শ্রেণি ভূগোল, দশম শ্রেণি ভূগোল, ক্লাস টেন ভূগোল, মাধ্যমিকের ভূগোল, ভূগোল মাধ্যমিক – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), দশম শ্রেণী – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), মাধ্যমিক ভূগোল পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), ক্লাস টেন পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), Madhyamik Geography – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), Class 10th পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), Class X পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়), ইংলিশ, মাধ্যমিক ইংলিশ, পরীক্ষা প্রস্তুতি, রেল, গ্রুপ ডি, এস এস সি, পি, এস, সি, সি এস সি, ডব্লু বি সি এস, নেট, সেট, চাকরির পরীক্ষা প্রস্তুতি, Madhyamik Geography Suggestion , West Bengal Madhyamik Class 10 Geography Suggestion, West Bengal Secondary Board exam suggestion , WBBSE , মাধ্যমিক সাজেশান, মাধ্যমিক সাজেশান , মাধ্যমিক সাজেশান , মাধ্যমিক সাজেশন, মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশান ,  মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশান , মাধ্যমিক ভূগোল , মাধ্যমিক ভূগোল, মধ্যশিক্ষা পর্ষদ, Madhyamik Geography Suggestion Geography , মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF,মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF, মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF, Madhyamik Class 10 Geography Suggestion PDF.

পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – মাধ্যমিক ভূগোল সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF

  এই ” মাধ্যমিক ভূগোল – পৃথিবীর মুখ্য জলবায়ু অঞ্চল এবং বৃষ্টিপাত ও উষ্ণতা লেখচিত্র (বায়ুমণ্ডল – দ্বিতীয় অধ্যায়) – সাজেশন | Madhyamik Geography Suggestion PDF PDF ” পোস্টটি থেকে যদি আপনার লাভ হয় তাহলে আমাদের পরিশ্রম সফল হবে। আরোও বিভিন্ন স্কুল বোর্ড পরীক্ষা, প্রতিযোগিতা মূলক পরীক্ষার সাজেশন, অতিসংক্ষিপ্ত, সংক্ষিপ্ত ও রোচনাধর্মী প্রশ্ন উত্তর (All Exam Guide Suggestion, MCQ Type, Short, Descriptive Question and answer), প্রতিদিন নতুন নতুন চাকরির খবর (Job News in Geography) জানতে এবং সমস্ত পরীক্ষার এডমিট কার্ড ডাউনলোড (All Exam Admit Card Download) করতে winexam.in ওয়েবসাইট ফলো করুন, ধন্যবাদ।

WiN EXAM

Recent Posts

একাদশ শ্রেণীর সমস্ত বিষয় সাজেশন ২০২৩ | Class 11 All Subjects Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর সমস্ত বিষয় সাজেশন ২০২৩ Class 11 All Subjects Suggestion 2023 PDF Download একাদশ…

2 months ago

একাদশ শ্রেণীর গণিত সাজেশন ২০২৩ | Class 11 Mathematics Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর গণিত সাজেশন ২০২৩ Class 11 Mathematics Suggestion 2023 PDF Download একাদশ শ্রেণীর গণিত…

2 months ago

একাদশ শ্রেণীর জীববিদ্যা সাজেশন ২০২৩ | Class 11 Biology Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর জীববিদ্যা সাজেশন ২০২৩ Class 11 Biology Suggestion 2023 PDF Download একাদশ শ্রেণীর জীববিদ্যা…

2 months ago

একাদশ শ্রেণীর রসায়ন সাজেশন ২০২৩ | Class 11 Chemistry Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর রসায়ন সাজেশন ২০২৩ Class 11 Chemistry Suggestion 2023 PDF Download একাদশ শ্রেণীর রসায়ন…

2 months ago

একাদশ শ্রেণীর পদার্থবিদ্যা সাজেশন ২০২৩ | Class 11 Physics Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর পদার্থবিদ্যা সাজেশন ২০২৩ Class 11 Physics Suggestion 2023 PDF Download একাদশ শ্রেণীর পদার্থবিদ্যা…

2 months ago

একাদশ শ্রেণীর সমাজবিজ্ঞান সাজেশন ২০২৩ | Class 11 Sociology Suggestion 2023 PDF Download

একাদশ শ্রেণীর সমাজবিজ্ঞান সাজেশন ২০২৩ Class 11 Sociology Suggestion 2023 PDF Download একাদশ শ্রেণীর সমাজবিজ্ঞান…

2 months ago